ক্রিকেট

আইপিএলে পাঁচটি সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত স্কোর; তালিকায় দুই ভারতীয়

শুরু রয়েছে বিশ্বের সেরা টি-টোয়েন্টি লিগ আইপিএল এর ১৪ তম আসর। এখানে প্রতিটি ব্যাটসম্যান দ্রুততম ইনিংস খেলে নিত্যনতুন রেকর্ড গড়েন। তবে এই সীমিত ওভারের ক্রিকেটে সেঞ্চুরি করা অত সহজ নয়। কিন্তু ২০১৩ সালে পুনে ওয়ারিয়র্সের বিপক্ষে ক্রিস গেইল ১৭৫* রানের একটি দুর্দান্ত ইনিংস খেলে অন্যান্য ব্যাটসম্যানদের চিন্তা-ধারা বদলে দিয়েছিলেন।

আজকের প্রতিবেদনে রয়েছে, আইপিএলের ইতিহাসে এখনো পর্যন্ত যে পাঁচটি সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত স্কোর রয়েছে; এবার দেখে নেওয়া যাক:-

১) ক্রিস গেইল: ১৭৫* রান

IPL: Season Wise 13 Records Which Are Impossible To Break

২০১৩ সালে আরসিবির বিস্ফোরক ওপেনার ক্রিস গেইল পুনে ওয়ারিয়র্সের বিপক্ষে মাত্র ৬৬ বলে ১৭৫* রানের একটি বিখ্যাত ইনিংস খেলেন এবং এটিই আইপিএলের সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত স্কোর। রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ক্রিস গেলের বিস্ফোরক ইনিংসের দৌলতে ২৬৩ রান তোলে, এমনকি এটিও সর্বোচ্চ দলীয় স্কোর হয়।

ওইদিন ক্যারিবিয়ান তারকার ব্যাট থেকে ১৩টি বাউন্ডারি ও ১৭টি ছক্কা এসেছিল। জবাবে ব্যাট করতে নেমে পুনে ওয়ারিয়র্স ১৩৩ রান তুলতে সক্ষম হয়। এমনকি বল হাতেও দুটি উইকেট নিয়ে ম্যাচের সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হন ক্রিস গেইল।

২) ব্রেন্ডন ম্যাককালাম: ১৫৮* রান

1st match of the IPL, Brendon McCullum's 158: A look back at memories that don't fade away

২০০৮ সালে আইপিএলের প্রথম মরসুমের প্রথম ম্যাচে ব্রেন্ডন ম্যাককালাম রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর বিপক্ষে ৭৩ বলে ১৫৮* রানের একটি চোখ-ধাঁধানো ইনিংস খেলেছিলেন। এর ফলে কলকাতা নাইট রাইডার্স এর স্কোরবোর্ড গিয়ে দাঁড়ায় ২২৩ রানে।

কিউই ব্যাটসম্যানের এই ইনিংসে ছিল ১০টি বাউন্ডারি ও ১৩টি ছক্কা। জবাবে রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু ব্যাট করতে নেমে মাত্র ৮২ রানে গুটিয়ে যায়। ১৪০ রানের বিশাল ব্যবধানে জয় পায় কেকেআর এবং ম্যাচের সেরা পুরস্কার ব্রেন্ডন ম্যাককালাম।

৩) এবি ডি ভিলিয়ার্স: ১৩৩* রান

Three best knocks of AB de Villiers for Royal Challengers Bangalore in the IPL

২০১৫ সালের আইপিএলে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বোলিংকে ছারখার করে মাত্র ৫৯ বলে ১৩৩* রানের একটি বিস্ফোরক ইনিংস খেলেন এবি ডি ভিলিয়ার্স। তার এই ইনিংসে সাজানো ১৯টি বাউন্ডারি ও ৪টি ছক্কা। এর ফলে রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর স্কোরবোর্ড গিয়ে দাঁড়ায় ২৩৫ রানে।

জবাবে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত কুড়ি ওভারের তারা ১৯৬ রান তুলতে সক্ষম হয়। ৩৯ রানে জয়লাভ করে আরসিবি এবং ম্যাচের সেরা খেলোয়াড় হিসেবে নির্বাচিত হন এবি ডি ভিলিয়ার্স।

৪) কে এল রাহুল: ১৩২* রান

KXIP vs RCB: KL Rahul demolishes RCB bowling attack, notches up highest individual score by an Indian in the history of IPL | Cricket News

২০২০ আইপলে পাঞ্জাব এর অধিনায়ক কে এল রাহুল আরসিবির বিপক্ষে ৬৯ বলে ১৩২ রানের একটি অনবদ্য ইনিংস খেলেছিলেন। তার এই ইনিংসে সাজানো ছিল ১৪টি বাউন্ডারি ও ৭টি ছক্কা। এর ফলে তাদের স্কোরবোর্ড গিয়ে দাঁড়ায় ২০৬ রানে।

এরপর প্রতিপক্ষ দল ব্যাট করতে নেমে মাত্র ১০৯ রানে অল আউট হয়ে যায়। কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব ৯৭ রানের বড় ব্যবধানে জয় পায় এবং ম্যাচের সেরা পুরস্কার পান কে এল রাহুল।

৫) ঋষভ পান্থ: ১২৮* রান

IPL 2018, DD vs MI: Pant and bowlers foil Mumbai's playoff chances - myKhel

২০১৮ সালে সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদের বিপক্ষে দিল্লি ডেয়ারডেভিলসের উইকেট-রক্ষক ব্যাটসম্যান ঋষভ পান্থ ৪ নম্বরে ব্যাট করতে নেমে ৬৩ বলে ১২৮ রানের বিস্ফোরক ইনিংস খেলেছিলেন। তার এই ইনিংসে সাজানো ছিল ১৫টি বাউন্ডারি ও ৭টি ছক্কা। এর ফলে তাদের স্কোরবোর্ড গিয়ে দাঁড়ায় ১৮৭ রানে।

দুর্ভাগ্যবশত এমন একটি ইনিংস খেলার পরেও হারের মুখোমুখি হতে হয় দিল্লিকে। ১৮.৫ ওভারে প্রয়োজনীয় রান তুলে নেয় সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদ। তবে ৯২ রানে অপরাজিত থাকায় শিখর ধাওয়ান ম্যান অফ দ্যা ম্যাচ হয়েছিলেন।

error: Content is protected !!