Connect with us

News

ভারতের কাছ থেকেই কেন আমেরিকা হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন চাইছে?

সারাবিশ্ব যেহেতু এখন করোনা ভাইরাসের কবলে জর্জরিত তাই প্রতিটি দেশের স্বাস্থ্য বিভাগের উচ্চপদস্থ কর্মীরা এই মহামারী থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য প্রতিষেধক আবিষ্কারে দিনরাত লেগে রয়েছেন। এর মধ্যে আমেরিকা এক ধাপ এগিয়ে রয়েছে।

এদিকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ভারতের কাছে হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন চেয়ে বসেছে। এমনকি এই ওষুধ না পাওয়া গেলে রীতিমতো হুমকি দিয়েছেন তিনি। ভারতকে ওষুধ রপ্তানির নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়ার অনুরোধ জানিয়েছেন। কিন্তু এই ওষুধের এত চাহিদা কেন? এটি দিয়ে কি করোনা ঠেকানো যেতে পারে….

যুক্তরাষ্ট্রের নতুন নিষেধাজ্ঞায় ...

এক বিশেষজ্ঞের মতে, হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন করোনা প্রতিরোধে একেবারেই কার্যকর নয়। সারাবিশ্বের আক্রান্ত দেশগুলি এই নিয়ে বিভিন্ন গবেষণা চালাচ্ছে। কোথাও ভালো ফল দেখা দিচ্ছে আবার কোথাও অন্য রোগ ডেকে আনছে। যেহেতু আমেরিকার পরিস্থিতি সংকটময় তাই তারা খড়কুটো আঁকড়ে ধরে বাঁচতে চাইছে। হয়তো তাদের দেশে হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন কিছুটা ভালো কাজ করছে আর তাই এর ওপরে নির্ভরশীলতা বেড়েছে।

হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন কি?
এক বিশেষজ্ঞের মতে ক্লোরোকুইন ফসফেট ম্যালেরিয়া রোগ সারানোর প্রতিষেধক, যা সিঙ্কোনা গাছের মূল উপাদান থেকে পাওয়া যায়। ক্লোরোকুইনের হাইড্রক্সিলেটেড সল্টকে বলে হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন। ভারত সরকার ইতিমধ্যেই এটিকে রোগ প্রতিরোধক ওষুধ হিসেবে ব্যবহার করার নির্দেশ দিয়েছেন।

এই ওষুধগুলো সাধারণত ম্যালেরিয়াপ্রবণ দেশ গুলিতে বেশির ভাগ পাওয়া যায় আর ভারত ক্লোরোকুইন তৈরিতে বিশ্বের প্রথম সারির দেশের তালিকায় রয়েছে। তাই সারা বিশ্ব এখন ভারতের দিকে তাকিয়ে রয়েছে হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন এর জন্য। ইতিমধ্যেই ভারত ১০ কোটি হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন ট্যাবলেট তৈরির করার নির্দেশ দিয়েছে।

medicine

তবে চিকিৎসকগণ এই ওষুধ নিয়ে মোটেই নিরাপদ নয় বলে মনে করেন। এরমধ্যে রয়েছে মারাত্মক পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া। বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন যে, এই ওষুধ সব মানুষের শরীরে প্রয়োগ করা যাবে না। বিশেষ করে হৃদরোগের সমস্যায় যারা ভুগছেন তাদের ক্ষেত্রে আরো জটিল হয়ে দাঁড়াবে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা হু এর মতে, ম্যালেরিয়ার কুইনাইন নিরাপদ এবং প্রয়োজনীয় ওষুধের তালিকায় পড়ে না। বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, এই ওষুধে প্রচুর পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া থাকার জন্যই হু (WHO) একে নিরাপদ ওষুধের তালিকায় রাখেনি।

Continue Reading
Click to comment

Trending ..

To Top